বাগেরহাটে মোরেলগঞ্জে এক অশীতিপর বৃদ্ধা মায়ের আকুতি

বাগেরহাটে মোরেলগঞ্জে এক অশীতিপর বৃদ্ধা মায়ের আকুতি
 এস.এম. সাইফুল ইসলাম কবির, বাগেরহাট অফিস: বাগেরহাটের মোরেলগঞ্জ উপজেলা কাঠালতলা গ্রামের অশীতিপর বৃদ্ধা মহরুন নেছা । পানগুছি নদীর ভাঙ্গনের মুখে একটি খুঁপড়ি ঘরে তার বসবাস। ছেলে সন্তানেরা অনেকেই মোরেলগঞ্জে বাইরে থাকেন। ছেলে মোশারেফ কাজী এলাকায় না থেকেও মিথ্যা মামলার শিকার হয়েছেন। তাই বৃদ্ধা মা তার সন্তান নির্দোষ দাবি করে মামলা থেকে রেহাই পাবার আকুতি জানিয়েছেন পুলিশ প্রশাসনের কাছে।
বৃদ্ধা মা মহরুন নেছা জানান, মোরেলগঞ্জ থানা পুলিশ শুক্রবার তার বাড়ির নিকটবর্তী একটি পরিত্যক্ত বাড়ি থেকে এক কেজি গাঁজা ও সরঞ্জাম উদ্ধার করেছে বলে তিনি জেনেছেন। ঐ পরিত্যক্ত বাড়িটি জনৈক আব্দুল হামিদ মহুরীর। দীর্ঘদিন ধরে বাড়িটি পরিত্যক্ত অবস্থায় পড়ে আছে। পুলিশ হামিদ মহুরীর পরিত্যক্ত ঘর থেকে মাদকদ্রব্য উদ্ধার করলেও এ মামলায় তার পুত্র মোশারেফ কাজী ওরফে মোশা কাজীকে জড়ানো হয়েছে।
এলাকাবাসী জানায়, পরিত্যক্ত ঘরটি আব্দুল হামিদ মহুরীর। পার্শ্ববর্তী বাড়ির গৃহবধূ শেফালী বেগম , রুস্তুম কাজী সহ এলাকার অনেকেই বলেছে পরিত্যক্ত বাড়ি মোশারেফ কাজীর নয়। সে দীর্ঘদিন যাবৎ ঢাকায় রয়েছেন। অথচ তার বিরুদ্ধে মামলা হয়েছে।
থানা অফিসার ইন চার্জ ঠাকুরদাশ মন্ডল জানান, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে দুপুর দেড়টার দিকে
অভিযান চালিয়ে পলিথিনে মোড়ানো এক কেজি গাঁজা ও বাটখারা উদ্ধার করে। তবে ওটা মোশা কাজীর বাড়ি নাকি অন্য কারো তা তদন্ত করে দেখা হবে।
আর এ উদ্ধারের ঘটনায় মোশা কাজী সহ একাধিক আসামী করে মোরেলগঞ্জ থানায় মাদক নিয়ন্ত্রন আইনে মামলা দায়ের হয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*