রাউজান ডাবুয়া খালের একটি সেতু বদলাতে পারে ২ পাড়ের বাসিন্দাদের বহুদিনের দুর্ভোগ

রাউজান ডাবুয়া খালের একটি সেতু বদলাতে পারে ২ পাড়ের বাসিন্দাদের বহুদিনের দুর্ভোগ

শাহাদাত হোসেন , (রাউজান)চট্টগ্রাম ;; রাউজানের ডাবুয়া খালে একটি সেতু নির্মানের দাবী বহুদিন ধরে।ডাবুয়া ইউনিয়নের ৫ নং ওয়ার্ডের কান্দিপাড়া ও তেলই পাড়ার সংগে যোগাযোগের একমাত্র মাধ্যম হিসাবে সেখানে সেতু নির্মানের দাবী এলাকাবাসীর।একটি সেতু নির্মান হলে ২ এলাকার বাসিন্দাদের বহুদিনের দুর্ভোগ লাঘব হবে।জানাগেছে খালের অপরপাশে শতবছরের একটি কবরাস্থান রয়েছে।যেটিতে দাফন করতে হলে অনেক দুর ঘুরে গিয়েই লাশ দাফন করতে হয়।অতি প্রয়োজন হয়ে পড়ায় এলাকার মুরব্বিরা সকলের সহযোগীতায় গত ২০১৬ সালের শেষ দিকে অস্থায়ি একটি ব্রিজ নির্মান করে প্রায় আড়াই লক্ষ টাকা ব্যায় করে।কিন্তু ২০১৭ সালের জুন মাসে প্রবল বন্যায় খড়স্রোত ডাবুয়া খালে পাহাড়ী ঢলে অস্থায়ী ব্রিজটি ভেঙ্গে নিয়ে যায়।পরবর্তি আবারো সেখানে এলাকার মুরব্বিরা ২লক্ষ টাকা খরচ করে আরেকটি অস্থায়ি ব্রিজ নির্মান করছে।এমতাবস্তায় সে এলাকায় সরকারী বরাদ্বের মাধ্যমে একটি স্থায়ি ব্রিজ নির্মানের দাবী এলাকাবাসী সকলের।জানতে চাইলে স্থানিয় প্যানেল চেয়ারম্যান নাজিম উদ্দিন জানান কান্দিপাড়া ও নোয়াগাজি সংযোগ (তেলইপাড়া) সড়কের এ এলাকায় একটি ব্রীজ নির্মান করা খুবই জরুরী।কারন খালের পুর্ব দক্ষিণে ঈদগাহ পুরানো কবরাস্তান এবং চেয়ারম্যান বাড়ী হয়ে শহিদ জাফর সড়কের সাথে যোগাযোগের নতুন মাত্রা যোগ হবে ব্রিজটি নির্মিত হলে।সংঘটক ইরফান সোলায়মান সহ অনেকে বলেন রাউজানের মাননীয় সংসদ সদস্য এবি এম ফজলে করিম চৌধুরী একটু দৃষ্টি দিলে সেখানে ব্রিজটি অতি দুরত নির্মান করা যাবে।সব মিলিয়ে ডাবুয়া এলাকায় একটি ব্রিজ নির্মানের মাধ্যমে বদলে যাবে বিভক্ত দু- এলাকার মানুষের যোগাযোগের মাধ্যম।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*