বগুড়া শেরপুরে ব্যবসায়ীকে মারপিট করে ২লক্ষ টাকা ছিনতাই

বগুড়া শেরপুরে ব্যবসায়ীকে মারপিট করে ২লক্ষ টাকা ছিনতাই
বগুড়া প্রতিনিধি : শেরপুরে পূর্ব শক্রতার জের ধরে চাতাল ব্যবসায়ী খালেক রানা(৪০)কে মারপিট করে টাকা ছিনতাই করেছে প্রতিপক্ষ। ঘটনাটি গত বৃহস্পতিবার দুপুরে উপজেলার দুবলাগাড়ী চকপোতা এলাকায় ঘটে। এতে গুরুতর আহত খালেক শেরপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি সহ থানায় মামলা দায়ের হয়েছে। এ ঘটনায় গত শুক্রবার রাতে পুলিশ মামলায় এজাহারভুক্ত আসামী নুরনবী(৩০)কে গ্রেফতার করেছে। অপরদিকে মামলা তুলে নিতেও বাদিপক্ষকে প্রাণনাশের হুমকী দিয়ে আসছে বলে জানিয়েছেন ভুক্তভোগীরা।
জানা যায়, উপজেলার শাহ-বন্দেগী ইউনিয়নের দুবলাগাড়ী চকপোতা গ্রামের মৃত আব্দুল মজিদের ছেলে চাউল ব্যবসায়ী আব্দুল খালেক রানার সাথে দীর্ঘদিন ধরে জমি-জমার দখল নিয়ে বিরোধ চলে আসছিল একই গ্রামের প্রতিপক্ষ তোফাজ্জল হোসেন, নুরনবী, ইউসুফ আলীর সাথে। এরই ধারাবাহিকতায় প্রতিপক্ষরা বিভিন্ন সময় হুমকী-ধামকী দিয়ে আসার এক পর্যায়ে গত বৃহস্পতিবার দুপুরে খালেকরানা চাউল বিক্রির টাকা কালেকশন করে তার নিজ বাড়ীর সামনেই আসতেই পূর্ব পরিকল্পিতভাবে প্রকাশ্যে ধারালো অস্ত্র দিয়ে খালেক রানাকে বেদম মারপিট ও গলায় দড়ি আটকিয়ে হত্যার চেষ্টা করে। এসময় প্রতিপক্ষরা খালেক রানার কাছে থেকে ২লাখ টাকা ছিনিয়ে নেয়। প্রতিপক্ষ সন্ত্রাসীদের মারপিটকালে খালেকের চিৎকারে স্থানীয়রা ছুটে এসে তাকে গুরুতর আহত অবস্থায় উদ্ধার করে শেরপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করান। এ ঘটনায় আহতের বড়ভাই আব্দুর রাজ্জাক বাদী হয়ে ১১ জানুয়ারী শুক্রবার রাতে শেরপুর থানায় একটি মামলা দায়ের করে। এ ঘটনায় পুলিশ সন্ত্রাসী নুরনবীকে গ্রেফতার করে জেল হাজতে প্রেরণ করেছে  থানার উপ-পুলিশ পরিদর্শক আব্দুল গফুর জানানন। এদিকে প্রতিপক্ষরা মামলা তুলে নিতে প্রাণনাশসহ বিভিন্ন হুমকী-ধামকী অব্যাহত রেখেছে বলে ভূক্তভোগীরা জানিয়েছেন।
এ প্রসঙ্গে শেরপুর থানার পুলিশ পরিদর্শক(তদন্ত) বুলবুল ইসলাম বলেন, মারপিটের ঘটনায় মামলার প্রেক্ষিতে একজনকে গ্রেফতার করা হয়েছে এবং অন্যান্যদের গ্রেফতারে পুলিশ অভিযান চালিয়ে যাচ্ছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*