স্মৃতি বিভ্রাটে হারিয়ে যাওয়া শব্দ সৈনিক ওস্তাদ মোহনলাল দাশকে রাষ্ট্রীয়ভাবে স্বীকৃতি প্রদানের গুরুত্ব অপরিসীম

ওস্তাদ মোহনলাল দাশ স্মৃতি সংসদের উদ্যোগে আলোচনা সভা
স্মৃতি বিভ্রাটে হারিয়ে যাওয়া শব্দ সৈনিক ওস্তাদ মোহনলাল দাশকে
রাষ্ট্রীয়ভাবে স্বীকৃতি প্রদানের গুরুত্ব অপরিসীম

অভিজিৎ দে রিপনঃ- উপমহাদেশের প্রখ্যাত সঙ্গীতগুরু শব্দ সৈনিক ওস্তাদ মোহনলাল দাশ একজন কালজয়ী কিংবদন্তী বাংলাদেশ রাষ্ট্র বিনির্মাণে যেসব ত্যাগী মুক্তিযোদ্ধার আত্ম বলিদান চিরকাল স্মরণীয় ও শ্রদ্ধায় অটুট থাকবে তা থেকে কণ্ঠ সৈনিক ওস্তাদ মোহনলাল দাশকে ব্যবচ্ছেদ করা যাবে না। ক্যাম্পে ক্যাম্পে তাঁর জীবন বাজির প্রাণান্তকর ত্যাগের ইতিহাস প্রত্যক্ষ কারীরা ভুলেনি, ভুলতেও পারেনা। গত ২৬ ও ২৭ এপ্রিল শুক্র ও শনিবার ৯৩তম জন্ম-জয়ন্তী উপলক্ষে নগরীর মোমিন রোডস্থ সু-প্রভাত ষ্টুডিও হলে ওস্তাদ মোহনলাল দাশ স্মৃতি সংসদের উদ্যোগে ‘‘তুমি আছো তুমি রবে’’ শীর্ষক অনুষ্ঠান সংগঠনের সভাপতি কবি স্বপন কুমার দাশের সভাপতিত্বে দুই দিন ব্যাপী বর্ণাঢ্য আয়োজনে অনুষ্ঠিত হয়। এতে প্রধান অতিথির আসন অলংকৃত করেন দৈনিক আজাদীর সম্পাদক আবদুল মালেক। প্রধান আলোচক হিসেবে উপস্থিত ছিলেন চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ে সমাজ তত্ত্ব অনুষদের সাবেক ডিন ড. গাজী সালাহ্ উদ্দিন। বিশেষ অতিথিবৃন্দের মধ্যে ছিলেন বীর মুক্তিযোদ্ধা বাদল চন্দ্র দাশ, মুক্তিযোদ্ধা লিয়াকত হোসেন ও কলামিষ্ট লায়ন এ.কে জাহেদ চৌধুরী, ভাস্কর ডি.কে দাশ মামুন, সঙ্গীত শিল্পী ইকবাল হায়দার, মুক্তধ্বনি আবৃত্তি পরিষদের সভাপতি মসরুর হোসেন । আরো উপস্থিত ছিলেন সাংবাদিক ওসমান জাহাঙ্গীর, আসিফ ইকবাল, রোজী চৌধুরী, সংগঠক সজল দাশ, নুরুল হুদা, সমাজ সেবা কর্মকর্তা আবু জাফর মঈন উদ্দিন, ছবি দাশ বর্মন, লোকশিল্পী কল্পতরু ভট্টাচার্য্য, গীতি কবি কবিতা মুখার্জ্জী, সাংবাদিক স.ম জিয়াউর রহমান, নবুয়াত আরা রকি, হেলাল চৌধুরী প্রমুখ। প্রধান অতিথি আবদুল মালেক বলেন ওস্তাদ মোহনলাল দাশের মহান স্বাধীনতা যুদ্ধের অবদান বাঙালির স্মৃতির বিভ্রাটে এতদিন হারিয়ে গিয়েছিল কিন্তু তাকে তাঁর মতো করে উপস্থাপন না করতে পারায় একমাত্র কারণ। একজন শব্দ সৈনিক ওস্তাদ মোহনলাল দাশের ভূমিকা অন্যন্য অসাধারণ। ওস্তাদ মোহনলাল দাশের রাষ্ট্রীয়ভাবে স্বীকৃতি প্রদানের গুরুত্ব অপরিসীম। তাঁকে সম্মানিত করলে মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাস ও বাঙালি জাতি সম্মানিত ও গৌরবান্নীত হবে। আলোচনা সভায় অন্যান্য বক্তারা বলেন শব্দ সৈনিক ওস্তাদ মোহনলাল দাশের সৃষ্টির গান সুরগুলো রক্ষণা বেক্ষণ সহ আরো প্রচার প্রসারের জন্য বাংলাদেশ বেতার, টেলিভিশনসহ যথাযথ কর্তৃপক্ষের কাছে অনুরোধ জানান। অনুষ্ঠানের ২য় পর্বে তাঁর সৃষ্টিকর্মের উপর সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়। সাংস্কৃতিক পর্বে অংশগ্রহন করেন সঙ্গীত শিল্পী পূর্ণিমা দাশ চৌধুরী, অভিষেক দাশ, গীতা আচার্য্য, আনন্দ প্রকৃতি, আবৃত্তি শিল্পী মসরুর হোসেন, সুদীপ্ত, আশিক, এ.টি.এম সাইফুর রহমান, রুনা চৌধুরী, সঙ্গীত শিল্পী দিদারুল ইসলাম, কবি স্বপন বড়–য়া, অনুষ্ঠান সঞ্চালনায় ছিলেন ববিতা ইসলাম।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*