২১ আগস্ট গ্রেনেড হামলা থেকে শেখ হাসিনা রক্ষা পেয়েছেন বলেই অপরাধীদের বিচার হচ্ছে

২১ আগস্ট গ্রেনেড হামলা থেকে শেখ হাসিনা রক্ষা পেয়েছেন বলেই অপরাধীদের বিচার হচ্ছে
—–মাহজাবিন খালেদ এমপি
ইসলামপু প্রতিনিধি: জামালাপুরের সংরক্ষিত আসনের এমপি কে’ ফোর্সের অধিনায়ক মেজর জেনারেল খালেদ মোশারফ (বীরউত্তম) এর কন্যা মাহজাবিন খালেদ বেবী বলেছেন ২১ আগস্ট গ্রেনেড হামলাসহ হত্যার নানা ষড়যন্ত্র থেকে মহান আল্লাহ জননেত্রী শেখ হাসিনাকে রক্ষা করেছেন বলেই আজ আ’লীগ সরকারে রয়েছে। আ’লীগ ক্ষমতায় বলেই দেশ আজ উন্নয়নের সিঁড়ে বেয়ে এগিয়ে যাচ্ছে। তিনি বেচেঁ আছেন বলেই স্বাধীনতা যুদ্ধে মানবতা বিরোধী রাজাকার, বঙ্গবন্ধুর খুনি ও ২১ আগষ্ট গ্রেনেড হামলার ষড়যন্ত্রকারীদের বিচার হয়েছে। ১৯৭৫ সালের ১৫ আগষ্ট জাতির জনক বঙ্গবন্ধু ও তার পরিবারের সদস্যদের হত্যার পর ষড়যন্ত্রকারীরা জননেত্রী শেখ হাসিনা ও শেখ রেহেনাকে হত্যা করার জন্য ২১ আগষ্ট গ্রেনেড হামলাসহ নানা ষড়যন্ত্র করে আসছিল।
জামালপুর-২ (ইসলামপুর) আসনের আ’লীগের মনোনয়ন প্রত্যাশী বেবী বুধবার দিনব্যাপী উপজেলার বিভিন্ন এলাকায় গণসংযোগ শেষে সন্ধায় পলবান্ধা ইউনিয়নের বাটিকামারী সরকারী প্রাইমারী স্কুল মাঠে স্থানীয় আ’লীগ আয়োজিত সুধী সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন। তিনি আরো বলেন, আমার চাচা এ আসনের ৬ বারের এমপি রাশেদ মোশারফ ও আমার দাদী-মা জমিলা আক্তার জাতির জনক বঙ্গবন্ধু ও তার পরিবারের সদস্যদের হত্যার বিচার দাবি করায় ষড়যন্ত্রকারীরা আমার বাবা কেউ হত্যা করেছে। আমরা ২ বোনও বাবা হারা এতিম। সীমাহীন ষড়যন্ত্রের মধ্যেও আল্লাহ আমাদের বাঁচিয়ে রেখেছেন মানুষের সেবা করার জন্য। তাই আজ আপনাদের পাশে দাঁড়াতে পারছি। দেশের অগ্রগতিকে ত্বরান্বিত করতে তিনি আবারও নৌকা প্রতীকে ভোট দেওয়ার আহ্বান জানান।
বাটিকামারী প্রাইমারী স্কুলের সাবেক প্রধান শিক্ষক সাইফুল ইসলামের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সুধী সমাবেশে বক্তব্য রাখেন- উপজেলা আ’লীগের সদস্য মজিবুর রহমান মিঠু, গাইবান্ধা ইউনিয়ন আ’লীগের সাধারণ সম্পাদক আব্দুল কুদ্দুস আকন্দ, কুলকান্দী ইউনিয়ন আ’লীগের সাধারণ সম্পাদক হাফিজ কাজী, নোয়ারপাড়া ইউনিয়ন আ’লীগের সাধারণ সম্পাদক গোলাম মোস্তুফা, সমাজ সেবক আব্দুল হেলিম, তারা মন্ডলসহ উপজেলা ও স্থানীয় তৃণমুলের আ‘লীগের অঙ্গ সংগঠনের নেতাকর্মী ও সুধীবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*