বর্নাঢ্য অায়োজনের মধ্য দিয়ে পালিত হলো একুশে পরিষদ নওগাঁর রজত জয়ন্তী উৎসব

বর্নাঢ্য অায়োজনের মধ্য দিয়ে পালিত হলো একুশে পরিষদ নওগাঁর রজত জয়ন্তী উৎসব

মাহবুবুজ্জামান সেতু,নওগাঁ প্রতিনিধি: নওগাঁর ঐতিহ্যবাহী সামাজিক-সাংস্কৃতিক সংগঠন একুশে পরিষদ নওগাঁর ২৫ বছর পূর্তি অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে সংস্কৃতিমন্ত্রী আসাদুজ্জামান নূর সংস্কৃতিমন্ত্রী আসাদুজ্জামান নূর বলেছেন, ‘যারা গাড়িতে আগুন দিয়ে মানুষ পুড়িয়ে হত্যা করে, বোমাবাজি করে, হলি আর্টিজানের মতো নিষ্পাপ, নিরাপরাধ মানুষকে জবাই করে হত্যা করে তারা মানুষ নয়, তারা দানব। আমাদের সিদ্ধান্ত নিতে হবে আমরা দানবের সমাজ তৈরি করব নাকি, মানবের সমাজ তৈরি করব। যদি মানবের সমাজ তৈরি করতে চাই, তাহলে সংস্কৃতি চর্চার কোনো বিকল্প নেই।’ গতকাল শনিবার নওগাঁর ঐতিহ্যবাহী সামাজিক-সাংস্কৃতিক সংগঠন একুশে পরিষদ নওগাঁর ২৫ বছর পূর্তি অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে সংস্কৃতিমন্ত্রী আসাদুজ্জামান নূর এ কথা বলেন। অনুষ্ঠানে উপস্থিত সুশীল সমাজ, শিক্ষক ও শিক্ষার্থীদের অভিভাবকদের উদ্দেশে তিনি বলেন, ‘আজকে আমরা আমাদের ছেলে-মেয়েদের মুখগুলোকে পাঠ্য বইয়ের পাতায় গুজিয়ে রাখছি। জিপিএ-৫ না পেলে জীবনটাই নাকি বৃথা। আজকে শিশু-কিশোরদের খেলাধুলা ও সংস্কৃতি চর্চার সুযোগ নেই। ফলে তারা তাদের ভেতরকার মানবিকতাটাকে হারিয়ে ফেলছে। ধীরে ধীরে সমাজ ও দেশ ধ্বংসের পথে চলে যাচ্ছে। এ অবস্থা থেকে উত্তরণের জন্য সংস্কৃতি চর্চার কোনো বিকল্প নেই।’ একুশে পরিষদ নওগাঁর রজত জয়ন্তী উৎসব উপলক্ষে সংগঠনটির কর্মীদের শুভেচ্ছা জানিয়ে মন্ত্রী বলেন, ‘সরকার সবকিছু একা করতে পারে না। সুশীল সমাজের মানুষ এগিয়ে না এলে পরিবর্তন সম্ভব না। মানবিক সমাজ গড়তে সারাদেশে ছড়িয়ে থাকা একুশে পরিষদের মতো সংগঠনগুলো বাতিঘর হিসেবে দেদীপ্যমান আছে।’ আসাদুজ্জামান নূর বলেন, ‘বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান তাঁর দীর্ঘ আন্দোলন সংগ্রামের জীবনে সব সময় প্রগতিশীল মানুষকে কাছে টেনেছিলেন। এ দেশকে একটি অসাম্প্রদায়িক দেশ গড়তে চেয়েছিলেন। কিন্তু তাঁর মৃত্যুর পর আমরা দীর্ঘ কয়েক দশক একুশ ও মুক্তিযুদ্ধের কথা বলতে পারিনি। বাংলাদেশ তখন উল্টোপথে চলেছে। নতুন প্রজন্মকে বিভ্রান্ত করা হয়েছে।’ সমাজে সংস্কৃতি কর্মীদের ভূমিকা উল্লেখ করতে গিয়ে মন্ত্রী বলেন, ‘বাংলাদেশে অনেক সংস্কৃতি কর্মী আছেন, যাঁরা নিজের খেয়ে বনের মোষ তাড়িয়ে বেড়ায়। তাঁরা যদি বনের মোষ না তাড়াতো, তাহলে বাংলাদেশ নামের ছোট্ট এই ফুলের বাগানে ধ্বংস হয়ে যেত। এ সমাজটায় তখন দানবেরা রাজত্ব করত।’ একুশে পরিষদ নওগাঁর সভাপতি ডিএম আব্দুল বারীর সভাপতিত্বে আলোচনা অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন- জাতীয় সংসদের হুইপ ও নওগাঁ-২ (পত্নীতলা ও ধামইরহাট) আসনের সাংসদ শহীদুজ্জামান সরকার। অন্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন- জেলা প্রশাসক মিজানুর, পুলিশ সুপার ইকবাল হোসেন প্রমুখ। আলোচনা অনুষ্ঠানের শুরুতে স্বাগত বক্তব্য রাখেন- একুশে পরিষদ নওগাঁর ২৫ বছর পূর্তি উৎসব উৎযাপন কমিটির আহ্বায়ক মনোয়ার হোসেন লিটন। শহরের কেডি সরকারি উচ্চবিদ্যালয় মাঠে দিনব্যাপী অনুষ্ঠানের প্রথম পর্বে সকাল ১০টায় জাতীয় পতাকা উত্তোলন, ও শান্তির প্রতীক পায়রা উড়ানো হয়। অনুষ্ঠানের উদ্বোধন করেন- সংগঠনটির প্রতিষ্ঠাতা আহ্বায়ক মাহফুজুর রহমান। পরে কেডি স্কুল থেকে বর্ণাঢ্য শোভাযাত্রা বের করা হয়। শোভাযাত্রাটি শহরের বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ সড়ক প্রদক্ষিণ করে। শোভাযাত্রা শেষে কেডি স্কুল মাঠে গ্রামীণ ঐতিহ্যবাহী খেলা লাঠি খেলার আয়োজন করা হয়। পরে দুপুরে আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। দ্বিতীয় পর্বে বিকালে মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*